মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

সাধারণ তথ্য

১। প্রশাসন শাখাঃ

         

(ক)     ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারীদের জেলার মধ্যে বিভিন্ন স্থাপনায় বদলী করণ, ৩য়, ৪র্থ শ্রেনীর কর্মচারীদের অর্জিত ছুটি, শ্রান্তি বিনোদন ছুটি ও ভাতা, অবসর প্রস্ত্ততি মূলক ছূটি মঞ্জুরির কার্যক্রম গৃহীত হয়ে থাকে।

(খ)     ১ম ও ২য় শ্রেণীর কর্মকর্তাদের প্রার্থীত অর্জিত ছুটি শ্রান্তি বিনোদন ছুটি ও ভাতা অবসর প্রস্ত্তত্তি মূলক ছুটি মঞ্জুরীর প্রস্তাবনা ও সুপারিশ নামা এ শাখা থেকে গৃহীত হয়ে থাকে।

(গ)     ১ম, ২য় ও ৩য় শ্রেণীর কর্মকর্তা/কর্মচারীদের বার্ষিক গোপনীয় প্রতিবেদন উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ ও সংরক্ষণ করণ।

(ঘ)     কর্মকর্তা/কর্মচারীদের মাসিক শূণ্য পদের বিবরণী এবং ত্রৈমাসিক প্রতিবেদন উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ এবং রক্ষণাবেক্ষণ সহ সংরক্ষণ করণ।

(ঙ)        কর্মকর্তা/কর্মচারীদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা আনায়ন এবং কোর্ট কেইসের চলমান কার্যক্রম গৃহীত হয়।

২। হিসাব শাখাঃ

(ক)     এ শাখা জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ দপ্তরে কর্মরত কর্মকর্তা/কর্মচারীদের মাসিক বেতনভাতাদির বিল বিভিন্ন শ্রেণীর ঠিকাদার, মিলাদের বিল, বিদ্যুৎ বিল, পানির বিল, টেলিফোন বিল, ভ্রমণ ভাতার বিলসহ সকল ধরণের বিল প্রস্ত্তত করতঃ পরিশোধের ব্যবস্থা গ্রহণ করে থাকে। জেলায় ১ম ও ২য় শ্রেণীর কর্মকর্তাদের ভ্রমন বিবরণী ও ভ্রমন ভাতার বিল অনুমদোনের কার্যক্রম গ্রহণ করণঃ বার্ষিক বাজেট প্রনয়ণ মাসিক প্রকৃত খরচের হিসাব বি-বিবরণী প্রস্ত্তত করতঃ উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ নিশ্চিত করণ। ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারীদের অবসর ভাতা ও আনুতোষিক মঞ্জুরী প্রদান, ১ম ও ২য় শ্রেণীর কর্মকর্তাদের অবসরভাতা ও আনুতোষিকের প্রস্তাবনা সুপারিশ সহ উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ করা।

জেলাধীন খাদ্যগুদাম সমূহের শ্রমিক ও হ্যান্ডলিংক ঠিকাদার এবং অভ্যন্তরীণ সড়ক পরিবহন ঠিকাদার নিয়োগের যাবতীয় কার্যক্রম গ্রহণ করে থাকে।

জেলাধীন ৩য় ও ৪র্থ শ্রেনীর কর্মচারীদের ভবিষ্যৎ তহবিল হতে সর্বোচ্চ দুটি অগ্রীম মঞ্জুরীর কার্যক্রম গৃহীত হয়ে থাকে। বাণিজ্যিক হিসাব নিরীক্ষা আপত্তির জবাব প্রস্ত্তত প্রেরণের কার্যক্রম দি-পক্ষীয় ও ত্রি-পক্ষীয় কমিটির সভায় উপস্থাপনার জন্য কার্যপত্র প্রস্ত্তত মাসিক ও ষান্মাসিক প্রতিবেদন প্রস্ত্তত ও প্রেরণের কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়।

৩। মজুদ শাখাঃ

সরকারী নির্দেশনা মোতাবেক মৌসুম ভিত্তিক প্রাপ্ত লক্ষ্য মাত্রার বিপরীতে খাদ্য শস্য সংগ্রহের লক্ষ্যে জেলা কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক মিলের অনুকূলে বরাদ্দ চুক্তিপত্র সম্পাদক করতঃ মিলের মাধ্যমে চাল এবং সরাসরি কৃষকদের নিকট হতে ধান ও গম সংগ্রহের কার্যক্রম করা, জেলার বাহির হতে খাদ্য শস্য আমদানির ব্যবস্থা, প্রয়োজনে জেলার আইআরটিসিদের মাধ্যমে জেলার মধ্যে সমন্বয় সাধন করা, বাজারদর উর্দ্ধগতির রোধকল্পে  সরকারি নির্দেশ অনুযায়ী জেলা শহরের ও,এম,এস জেলা, ফেয়ার প্রাইজ ডিলার, জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ৪র্থ শ্রেনীর কর্মচারীদের মধ্যে খাদ্য শস্য বিক্রয়ের নিমিত্ত ডিলার নির্বাচন/নিয়োগ করা এবং নিয়োজিত ডিলাদের মাধ্যমে খাদ্য শস্য বিক্রয় তদারকির ব্যবস্থা গ্রহণ করা।

জেলার বাহির হতে আগত খাদ্য শস্যের ভি-ইনভয়েসের ২য় ও ৪র্থ কপি যাচাই-বাছাই করতঃ প্রতিস্বাক্ষর পূর্বক ২য় কপি খাদ্য শস্য প্রেরণ কেন্দ্রে এবং নিয়ন্ত্রণকারীর কর্মকর্তার নিকট ৪র্থ কপি প্রেরণ নিশ্চিত করা। খাদ্য শস্যের গুদাম/পরিবহন ঘাটতির মূল্য অবলোপন আদেশ জারী করা।

জেলা প্রশাসনের সহযোগীতায় বার্ষিক বাস্তব প্রতিপাদন প্রতিবেদন প্রনয়ণ পূর্বক মন্ত্রণালয়সহ সংশ্লিষ্ট সকলের নিকট প্রেরণ নিশ্চিত করণ। সকল প্রকার পরিবহন ঠিকাদারদের (ডিবিসিসি/এমসি/পিএমসি/সিআরটিসি/ডিআরটিসি/আইআরটিসি) কার্যকালীন

সময়ের হিসাব চূড়ান্ত করণের লক্ষ্যে দাবী/না-দাবী প্রত্যয়ন পত্র জারীর কার্যক্রম গ্রহণ।

সাপ্তাহিক ভিত্তিতে খাদ্য শস্যের ও খালি বস্তার আমদানি রপ্তানির হিসাব, মজুদ প্রতিবেদন, খাদ্য শস্যের মান-ভিত্তিক ও প্রকার ভিত্তিক প্রতিবেদন। মন্ত্রণালয় ও খাত-ভিত্তিক খাদ্য শস্যের উত্তোলণের হিসাব প্রনয়ণ পূর্বক বাহক মারফত বিভাগীয় দপ্তরে প্রেরণ নিশ্চিত করা।

প্রতিদিন খাদ্য গুদাম সমূহের মজুদ/প্রাপ্তি বিভিন্ন খাতে উত্তোলণ, সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক বিভিন্ন চ্যানেলে বিক্রিত খাদ্য শস্যের পরিমান সংগ্রহ করা, রেজিষ্টারে অন্তর্ভূক্ত করা এবং প্রতিদিন অপরাহ্নে দুরালাপনীর মাধ্যমে বিভাগীয় দপ্তর প্রয়োজনে খাদ্য মন্ত্রণালয় ও খাদ্য অধিদপ্তরকে অবহিত করনের কার্যক্রম গৃহীত হয়।

এ শাখা থেকে চাল কলের অনুকূলে মিল লাইসেন্স এফজি লাইসেন্স খাদ্য শস্যের পাইকারী ব্যবসায়ীদের এফজি লাইসেন্স জেলার নির্বাচিত ও এমএস ডিলারদের অনুকূলে এফজি লাইসেন্স প্রদানের এবং প্রতি জুন আর্থিক বছর ভিত্তিক নবায়নের কার্যক্রম গৃহীত হয়।

এছাড়া এশাখা অভ্যন্তরীণ নিরীক্ষা আপত্তির নথি সংরক্ষণ করা, জবাব প্রনয়ণ করতঃ প্রেরণের কার্যক্রম, দ্বি-পক্ষীয় কমিটির সভায় উপস্থাপনের লক্ষ্যে কার্য্যপত্র প্রস্ত্ততের কাজ, মাসিক হিসাব বিবরণীর প্রস্ত্ততসহ প্রেরণ নিশ্চিত করনের কাজ করে থাকে।

 

নেজারত শাখাঃ

জেলার এলএসডি সমূহে ভূমি সম্পর্কিত তথ্যাদি রক্ষণাবেক্ষণ, খাদ্য বিভাগের স্থায়ী সম্পদের হিসাব, ডিলার, মিলার, ঠিকাদারদের জামানত সংরক্ষণ বিমুক্ত করনের কার্যাদি, তেজগাঁও স্টেশনারী স্টোর থেকে স্টেশনারীসহ বিভিন্ন অবিক্রিত ফরম আনয়নের এবং তার হিসাব রক্ষণা-বেক্ষণ, কর্মকর্তা/কর্মচারীদের বেতন-ভাতাদিসহ অন্যান্য বিলের টাকা নগদায়নের এবং পরিশোধের কার্যক্রম করে থাকে।

ইস্যু/ডেসপাস শাখাঃ

দেশের বিভিন্ন অঞ্চল এবং দপ্তর থেকে আগত পত্র সমূহ নিবন্ধনের এবং নিম্ন স্বাক্ষরকারী স্থাপনায় বিভিন্ন শাখা হতে প্রস্তুতকৃত প্রতিবেদন/পত্র সমূহ সংশ্লিষ্ট মহলে প্রেরণের নিমিত্ত ধারাবাহিকভাবে (বছর ভিত্তিক) ইস্যু নাম্বার ও দেয়া ও পত্র সমূহ ডেসপাস করা সরকারি ডাক টিকিটের খরচের হিসাব সংরক্ষণের কাজ করে থাকে।


Share with :

Facebook Twitter